বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ ২০২০-২১ এর ম্যাচে ড্র করেছে শেখ রাসেল কেসি ও ঢাকা মোহামেডান এসসি। দুই দলের ম্যাচটি ১-১ গোলের ব্যবধানে শেষ হয়।

ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে আক্রমন ও প্রতি আক্রমনে খেলা জমে উঠে। প্রথম থেকে গোলের সুযোগ তৈরি করে সাদা-কালো শিবির। খেলার ১১ মিনিটে ডাইবেট এর শট রুখে দেন শেখ রাসেলের গোলরক্ষক ও অধিনায়ক আশরাফুল রানা। এরপরই কর্নার বলে হেড নেন ডাইবেট। অল্পের জন্য তা বারের উপর দিয়ে চলে গেলে হতাশায় পুড়তে হয় তাকে।

ম্যাচে ২৫ মিনিটে শেখ রাসেলের ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড জিয়ানকার্লো লোপেজে শট লক্ষভ্রষ্ট হয়। ২৬ মিনিটে ওবি মনেকের হেড বারের উপর দিয়ে চলে গেলে এগিয়ে যাওয়া হয়নি শেখ রাসেলের। ম্যাচে ডেড লক ভাঙ্গে প্রথমার্ধের যোগ করা অতিরিক্ত সময়ে। শেখ রাসেলের ডি বক্সে সোহেল রানার হাতে বল লাগলে পেনাল্টি পায় মোহামেডান। স্পটকিকে তা জালে জড়াতে ভুল করেননি ডাইবেট। এতে লিড নিয়ে বিরতিতে যায় মতিঝিলের দলটি।

বিরতির পর ম্যাচে সমতা ফেরায় শেখ রাসেল। বখতিয়ারের ফ্রি-কিক থেকে প্রথমে মাথা ছোঁয়ান হেমন্ত ভিনসেন্ট। সেখান থেকে বল পেয়ে হেড করে তা জালের ঠিকানায় পৌঁছে দেন জিয়ানকার্লো লোপেজ। এরপর দুদল বেশ কিছু আক্রমন চালালেও আর গোলের দেখা পায়নি। ফলে পয়েন্ট ভাগাভাগি করে সন্তুষ্ট থাকতে হয় দুই দলকে।

লিগে ৩ ম্যাচে ২ জয় ও এক ড্রয়ে ৭ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয়স্থানে রয়েছে শেখ রাসেল কেসি। অন্যদিকে ৩ ম্যাচে ৪ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচে ঢাকা মোহামেডান এসসি।

দিনের প্রথম ম্যাচে মুন্সিগঞ্জে বীরশ্রেষ্ঠ মতিউর রহমান স্টেডিয়ামে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়া চক্র ১-০ গোলে পরাজিত করেছে আরমবাগ ক্রীড়া সংঘকে। ম্যাচে ৪৭ মিনিটে জয়সূচক গোলটি করেন মেহেদী হাসান রয়েল। এতে দুই ম্যাচ শেষে এক জয় ও এক হারে ৩ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের ৮ নাম্বারে রয়েছে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কেসি। অন্যদিকে ৩ ম্যাচের সবকটিতে হেরে টেবিলের তলানিতে রয়েছে আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here