শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র ও মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের জয় দিয়েই শেষ হলো বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের এবারের আসর। লীগের শেষ রাউন্ডে রাজশাহী মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়ামে স্বাধীনতা ক্রীড়া সংঘের মুখোমুখি হয়েছিলো শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র। ম্যাচে স্বাধীনতাকে ৪-১ গোলে পরাজিত করে জুলফিকার মাহমুদ মিন্টুর দল।

১৬ মিনিটে রিচার্ড গাদজের গোলে শেখ রাসেল প্রথম লিড পায়। স্বাধীনতার সাব্বির হোসেনের ভুল পাসে বল পেয়ে সেলিম রেজাকে পাশ কাটিয়ে বক্সের সামনে থেকে সজোরে এক শট করে গোল করেন শেখ রাসেলের এই ঘানাইয়ান ফুটবলার। মিনিট ছয়েক পর আইভোরিয়ান মিডফিল্ডার চার্লস দিদিয়ার নির্ভুল ফি-কিক থেকে গোল করে শেখ রাসেলকে ২-০ গোলের লিড এনে দেয়।

৩৫ মিনিটের মাথায় চার্লস দিদিয়ারের লম্বা থ্রু পাস থেকে মাঠের ডানপ্রান্তে ইসমাইল আকিনাদে বলের দখল নিয়ে সাকিলকে কাটিয়ে বক্সের ভেতরে ঢুকলে আশিক পিছন দিক থেকে আকিনাদে’কে ফাউল করলে পেনাল্টি পায় শেখ রাসেল এবং পেনাল্টিতে স্পট কিক থেকে ম্যাচে নিজের প্রথম গোলটি করে শেখ রাসেলের নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড ইসমাইল আকিনাদে। ৫১ মিনিটে পেনাল্টি থেকে বদলি হিসেবে নামা খেলোয়াড় সাইফ শামসুদের গোলে স্বাধীনতা ক্রীড়া সংঘ এক গোল শোধ করে। ৭৩ মিনিটে ইসমাইল আকিনাদের কাটব্যাকে দৌড়ে এসে বক্সের বাইরে থেকে শট নিয়ে গোল আদায় করে নেয় মানিক মোল্লা। এতে শেষ ম্যাচে ৪-১ গোলে জয় পায় শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র।

দিনের আরেক ম্যাচে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের কাছে কুপোকাত হয়েছে রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটি। কুমিল্লার ভাষা সৈনিক শহীদ ধীরেন্দ্র নাথ দত্ত স্টেডিয়ামে রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটিকে ৭-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব। মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে একাই চার গোল করেন দলের নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড সোলেমান দিয়াবাতে এবং অবি মোনেকে, আশরাফুল হক আসিফ,শাহেদ হোসেন একটি করে গোল করে। এছাড়া ম্যাচে রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটির মোহাম্মদ তারেক লাল কার্ড দেখেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here